Untitled Document
** সুন্দরবনে হারিয়ে যাওয়া কিশোরকে উদ্ধার ** হাত ধোয়ার কর্মসূচি না টাকার শ্রাদ্ধ ** যমুনায় নৌকাডুবি: আরও ৫ জনের লাশ উদ্ধার ** ঝুঁকি নিয়ে রাজধানীতে ফিরতে শুরু করেছে মানুষ ** দিনাজপুরে সরকার সম্পর্কে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে মিথ্যা মন্তব্য ও গুজব ছড়ানো: যুবক গ্রেপ্তার ** মেয়ের সামনে মাকে গণধর্ষণ : গ্রেপ্তার ১ ** ঝুঁকিপূর্ণ নারায়নগঞ্জে খুলেছে ১৯১টি কারখানা ** গাজীপুরে ‘বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত ** বেঁচে আছেন’ কিম জং উন ** ভুলের জন্য আমি ক্ষমা প্রার্থী -ইরিন রিয়া,সভাপতি,যুব মহিলালীগ,খিলক্ষেত থানা ** কিশোরগঞ্জে মাছ চুরিকে কেন্দ্র করে নিহত এক ** ১০ দিনের জন্য অবরুদ্ধ দেশ ** ফরিদপুরের চরভদ্রাসনে ছুরির আঘাতে এক যুবক নিহত ** খুলনায় জ্বর ও শ্বাসকষ্টে একজনের মৃত্যু ** কানাইঘাটে দোকান বন্ধ করতে বলায় পুলিশকে ধাওয়া
Mar 242013
 

স্বাধীনতাযুদ্ধের দিনগুলোতে বাঙালির পাশে দাঁড়ানো বিদেশি বন্ধুদের সম্মাননা জানাতে রোববার আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “বাংলাদেশের মানুষ ধর্মপ্রাণ; ধর্মান্ধ নয়। তারা একাত্তরের চেতনায় উদ্ধুদ্ধ; ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত আধুনিক ও অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ নির্মাণে তারা বদ্ধপরিকর।”

সম্মাননা নিতে আসা বিদেশি অতিথিদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “এই সংগ্রামে আমরা আপনাদের সমর্থন ও শুভেচ্ছা চাই। আমি নিশ্চিত ১৯৭১ সালে বাংলার মানুষের আকাঙ্ক্ষা বাস্তবায়নে যেভাবে আপনারা সমর্থন দিয়েছিলেন, আজকেও একইভাবে একটি দারিদ্র্য ও ক্ষুধামুক্ত, সমৃদ্ধ, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বিনির্মাণে আপনাদের নৈতিক সমর্থন প্রয়োজন। আশা করি, এই সমর্থন আমরা পাব।”

একাত্তরে এ দেশের মানুষের ওপর পাকিস্তানি বাহিনীর নির্যাতন এবং সে সময় বিদেশি বন্ধুদের অবদানের কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আমাদের বিদেশি মুক্তিযোদ্ধা বন্ধুরা বাংলাদেশের নিরীহ জনগণের উপর অত্যাচারের বিরুদ্ধে সোচ্চার হন। আপনারা নিজ নিজ দেশের সরকারের দৃষ্টিভঙ্গির উপরও প্রভাব বিস্তার করতে সহায়তা করেন।”

সেই অবদানের জন্য তাদের ধন্যবাদ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “অনেক বন্ধুই ইতোমধ্যে আমাদের ছেড়ে চিরতরে চলে গেছেন। আমি তাদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা জানাচ্ছি। আপনাদের অনেকেরই বয়স হয়েছে। তবু আপনারা কষ্ট করে এখানে উপস্থিত হয়েছেন, এজন্য আমি ব্যক্তিগতভাবে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।”

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এই অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে কিউবার নেতা ফিদেল কাস্ত্রো এবং যুক্তরজ্যের সাবেক প্রধানমন্ত্রী লর্ড হ্যারল্ড উইলসনের পক্ষে কিউবার রাষ্ট্রদূত ও হ্যারল্ড উইলসনের ছেলে অধ্যাপক রবিন উইলসন  ‘বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ সম্মাননা’ গ্রহণ করেন।

একাত্তরের পূর্ব রণাঙ্গনে ভারতীয় ও বাংলাদেশি যৌথ বাহিনীর জেনারেল অফিসার কমান্ডিং ইন চিফ জেনারেল জেনারেল জগজিৎ সিং অরোরা এবং পশ্চিমবঙ্গের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসুসহ ৬৭ বিদেশি বন্ধুকে দেয়া হয় ‘মুক্তিযুদ্ধ মৈত্রী সম্মাননা’।

শেখ হাসিনা বলেন, “আধুনিক বিশ্বের ইতিহাসে যেমন এক নজিরবিহীন রক্তপাত বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ; তেমনি নজিরবিহীন আমাদের বিদেশি বন্ধুদের অকুণ্ঠ সমর্থন।”

প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যের শুরুতেই অনুষ্ঠানে উপস্থিত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানান।

 Posted by at 2:21 pm

 Leave a Reply

(required)

(required)

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>